৩০ অগ্রাহায়ণ ১৪২৫, শনিবার ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮ , ৮:২১ পূর্বাহ্ণ

অপ্রীতিকর অবস্থায় জামায়াত কর্মী গ্রেফতার

বিডিএসনিউজ২৪.কম

প্রকাশিত : ০১:৫৬ এএম, ২২ জানুয়ারি ২০১৮ সোমবার | আপডেট: ০৭:৪০ পিএম, ২৫ জানুয়ারি ২০১৮ বৃহস্পতিবার

অপ্রীতিকর অবস্থায় জামায়াত কর্মী গ্রেফতার

অপ্রীতিকর অবস্থায় জামায়াত কর্মী গ্রেফতার

ধর্ম নিয়ে রাজনৈতিক ব্যবসার অন্যতম বড় বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান জামায়াতে ইসলামীর মুখোশ উন্মোচিত হয়েছে বহু বছর আগেই। বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে পাকিস্থানিদের দোসর হিসেবে হত্যা, ধর্ষণ, লুটপাটসহ বিবিধ মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে দন্ডিত এই দলটি। সেই সাথে বিশ্বব্যাপী শীর্ষস্থানীয় সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেবে কালো তালিকাভুক্ত হয়েছে দলটির ছাত্র সংগঠন ইসলামী ছাত্র শিবির। মাঝে মাঝেই পত্র পত্রিকায় তাদের ধর্ম ব্যবসার আড়ালে অনৈতিক কর্মকাণ্ডের দায়ে দলটির নারী সংগঠন- ইসলামী ছাত্রী সংস্থারও নাম দেখা যায়। মূলতঃ জামায়াতের বড় বড় নেতা-কর্মীদের মনোরঞ্জনের কাজে এই ছাত্রীরা দলীয় নির্দেশে লিপ্ত থাকে বলে বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে।

এবার নাটোর শহরের কানাইখালি এলাকার একটি বাড়িতে অপ্রীতিকর অবস্থায় ৪ নারীসহ ৭ জামায়াত কর্মী পুলিশের হাতে আটক হওয়ার সংবাদ পাওয়া গেছে।

বুধবার (১৭ জানুয়ারি) বিকেল সাড়ে ৪টায় নাটোর ফায়ার স্টেশনের পেছনে জামায়াত কর্মী নাসির উদ্দিনের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। এসময় তাদের কাছ থেকে ৩০টি জিহাদি বইও উদ্ধার করা হয়।

আটককৃতরা হল- জামায়াত কর্মী কানাইখালি মহল্লার আব্দুর রহমানের ছেলে নাসির উদ্দিন, নাদিম হোসেন, আরিফা খাতুন পলি, একই এলাকার নজরুল ইসলামের ছেলে জাহিদুল ইসলাম, সদর উপজেলার গোয়ালডাঙ্গা গ্রামের মৃত নুরুল হকের স্ত্রী জাহানারা, ছাতনী ভাটপাড়া গ্রামের লোকমান আলীর স্ত্রী নুর বানু ও দত্তপাড়া গ্রামের মৃত আমিরুল ইসলামের স্ত্রী নুরুন নাহার।

নাটোর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সিকদার মশিউর রহমানের বরাতে জানা গেছে, আটককৃত পুরুষরা সবাই জামায়াতের সক্রিয় কর্মী।

আটক অভিযানের বিবরণে জানা যায়, বুধবার বিকেলে তারা শহরের কানাইখালি মহল্লার নাসির উদ্দিনের বাড়িতে নাশকতা সৃষ্টির পরিকল্পনা ও সাংগঠনিক কর্মকাণ্ড পরিচালনা নিয়ে গোপন বৈঠকে বসে। বৈঠক শেষে স্বামীহারা ২ নারীসহ ৪ জনই জামায়াতের বাকি পুরুষ কর্মীদের সাথে অবৈধ প্রণয়ে লিপ্ত ছিল। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে পুলিশ ওই বাড়িতে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে রীতিমতো অপ্রীতিকর অবস্থায় আটক করে। বিষয়টি এলাকায় বেশ চাঞ্চল্য সৃষ্টি করেছে।

তাদের বিরুদ্ধে থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে এবং তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে বলে নাটোর সদর থানাসূত্রে জানা গেছে।